বর্তমান স্থান: মূল পাতা > 孟加拉语旅游 > প্রধান লেখা

চলুন বেড়িয়ে আসি বেইজিংয়ের হুথোং

2017-11-03 16:38:06

বেইজিংয়ের একটি প্রবাদ আছে। তা হলো 'বেইজিংয়ের হুথোং অথবা গলিতে না গেলে বেইজিং সম্পর্কে আপনার কোনো ধারণা হবে না। বেইজিংয়ের গলিতে না গেলে বেইজিং সফর ব্যর্থ।'

চলুন বেড়িয়ে আসি বেইজিংয়ের হুথোং

বেইজিং শহরে ছোট-বড় অনেক গলি আছে। এ সব গলি জালের মতো সারা বেইজিং শহরে ছড়িয়ে ছিটিয়ে আছে। এসব গলি হলো বেইজিং শহরের পুরানো দিনের অন্যতম বৈশিষ্ট্য। চীনের অন্যান্য স্থান থেকে আসা পর্যটকরা বেইজিং শহরের পুরাতন সংস্কৃতি ও রীতিনীতি অনুভব করতে চাইলে তাদের পুরাতন বেইজিংয়ের গলিগুলোতে যেতেই হবে।

চলুন বেড়িয়ে আসি বেইজিংয়ের হুথোং

ইতিহাস থেকে জানা যায়, ত্রয়োদশ শতাব্দীতে বেইজিং ইউয়ান রাজবংশের রাজধানী হিসেবে নির্ধারিত হওয়ার পর গলিগুলোর আবির্ভাব হয়। তত্কালীন শাসক ছিল মঙ্গোলীয় জাতির মানুষ। মঙ্গোলীয় ভাষায় গলিকে হুথোং বলা হতো। মঙ্গোলীয় ভাষায় হুথোংয়ের অর্থ হল 'কুয়ার'। কুয়ার-এর অবস্থান অনুযায়ী বেইজিংয়ের প্রথম সময়পর্বে এসব গলি তৈরি হয়। কারণ, তখনকার অভ্যাস অনুযায়ী প্রতিটি হুথোংয়ে একটি কুয়ার থাকতো। শত শত বছরের পরিবর্তন ও উন্নয়নের পর এখন হুথোং উত্তর চীনের শহরগুলোর ছোট রাস্তা বা গলির নাম। বেইজিংয়ের হুথোংগুলো সাধারণত পূর্ব-পশ্চিম দিক বরাবর হয়ে থাকে। এ গলিগুলো সাধারণত নয় মিটার চওড়া। হুথোংয়ের দু'পাশে রয়েছে ঐতিহ্যবাহী বসতবাড়ি বা 'সি হ্য ইউয়ান'। এ বাড়িগুলো বেইজিংয়ের সবচেয়ে বৈশিষ্ট্যময় বাসভবন।

চলুন বেড়িয়ে আসি বেইজিংয়ের হুথোং

খবর :
সর্বশেষ খবর চীন বিশ্ব দক্ষিণ এশিয়া

চীনা ভাষা শিখুন সংস্কৃতি জীবন বাণিজ্য চীনের বিশ্বকোষ